নবীগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাকে নির্যাতনকারী ছেলের ১০ মাস ১০ দিনের সাজা

  • আপডেট টাইম : October 09 2021, 07:48
  • 11 বার পঠিত
নবীগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাকে নির্যাতনকারী ছেলের ১০ মাস ১০ দিনের সাজা

উত্তম কুমার পাল হিমেল, নবীগঞ্জ : হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে মাকে নির্যাতনের অপরাধে ছেলের ১০ মাস ১০ দিনের কারাদণ্ড হয়েছে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মহি উদ্দিন পরিচালিত ভ্রাম্যমাণ আদালত এই রায় ঘোষণা করে।
উপজেলার পূর্ব তিমিরপুর গ্রামের হোসেন মিয়া বেঁচে নেই। তাই কাঁথা সেলাই করে সংসার চালান তার বিধবা স্ত্রী। ঘরে ছেলে আছে ২১ বছর বয়সী। আছে তার বউও; কিন্তু সে কিছুই করেনা। অথচ টাকার জন্যে মায়ের উপর চাপ সৃষ্টি করে। ভাংচুর করে জিনিসপত্র। টাকা না পেয়ে প্রায় সময় মায়ের গায়ে হাত পর্যন্ত তুলে।
এ অভিযোগ অনেকদিনের; কিন্তু মা নীরবে সব সহ্য করেন। মুখে ফুটে কাউকে কিছু বলেননা। তবু পাড়া-প্রতিবেশীর সব জানা হয়ে গিয়েছিল।
শুক্রবারও মাকে নির্যাতন করে মিশন মিয়া। আঘাত করে রড দিয়ে। উদ্যত হয় দা দিয়ে কোপ মারতে; কিন্তু ততক্ষণে প্রতিবেশীরা ছুটে এসেছেন। তাৎক্ষণিক ধর ফেলেন তাকে। খবর পাঠান উপজেলা প্রশাসনে। খবর পেয়েই ছুটে আসনের নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মহি উদ্দিন। বসান ভ্রাম্যমাণ আদালত। শেষপর্যন্ত মুখ খুলেন মা। গড়গড় করে সব বলে দেন। অন্যদিকে অভিযুক্ত ছেলেও অপরাধ স্বীকার করে নেয়।
এর পরিপ্রেক্ষিতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক বাংলাদেশ দণ্ডবিধি ১৮৬০ এর ৩৫৫ ধারায় অপরাধের দায়ে মিশন মিয়াকে ১০ মাস ১০ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেন।
আইনশৃঙ্খলা রক্ষা ও প্রসিকিউশনে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ ভ্রাম্যমাণ আদালতেকে সহযোগিতা করে।